প্রকাশিত সংবাদের সাথে ভিন্নমত

প্রকাশিত: ৮:১৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৮, ২০২০

কালনী ভিউ ডেস্ক::
গতকাল বৃহস্পতিবার বিভিন্ন প্রিন্ট ও অনলাইন নিউজ পোর্টালে ”দিরাইয়ে স্কুল রুমে ফার্নিচার রেখে ব্যবসা করছেন শিক্ষক” শিরোনামে প্রকাশিত সংবাদের সাথে ভিন্নমত পোষণ করেছেন ধল পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়ের ওই শিক্ষক দীন ইসলাম। গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে তিনি বলেন স্কুল রুমে ফার্নিচার রাখার সাথে আমার সংশ্লিষ্টতা নেই। ফার্নিচার ব্যবসায়ী বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্য শিমুল মিয়ার সাথে কথা বলে বিদ্যালয়ের রুমে ফার্নিচার রেখেছেন। তবে কি কারণে আমার বিরুদ্ধে ধল গ্রামের কবির মিয়া অতি উৎসাহী হয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মহোদয় বরাবরে লিখিত অভিযোগ করেছেন তা আমার বোধগম্য নয়। সমাজে আমাকে হেয়প্রতিপন্ন করার লক্ষ্যে সম্পূর্ণ উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে আমাকে জড়ানো হয়েছে। আমি এ অভিযোগের তীব্র নিন্দা জানাই। এ ব্যাপারে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ দেলোয়ার হোসেন বলেন ধল গ্রামের কবির মিয়ার অভিযোগের ভিত্তিতে উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা বিষয়টি তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আমাকে নির্দেশ প্রদান করেন। সরজমিন তদন্ত করে শিক্ষক দীন ইসলাম বিদ্যালয়ের রুমে ফার্নিচার রাখার সাথে জড়িত নয়, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্য শিমুল মিয়া রুমে ফার্নিচার রেখেছেন বলে জানা গেছে। বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্যবৃন্দ ও এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে বিষয়টি মীমাংসা করা হয়েছে।