নবজাতকটির এক মাথা, দুই মুখ ও চার চোখ!

প্রকাশিত: ১:৪৫ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০২০

টাঙ্গাইল সংবাদদাতা::
টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে এক মাথা, দুই মুখ ও চার চোখ বিশিষ্ট এক মেয়ের জন্ম দিয়েছেন একজন গৃহবধূ।

রোববার বিকেল ৫টার দিকে উপজেলা সদরের ডিজিটাল ক্লিনিক এন্ড নাসিং হোমে শিশুটি জন্ম নেয়।

তবে জন্মের এক ঘণ্টা পরেই শিশুটি মারা যায় বলে জানান ক্লিনিকের ম্যানেজার ও গৃহবধূর শ্বশুর মোকছেদ আলী।

তারা বলেন, গোপালপুর উপজেলার মাদারজানি গ্রামের শফিকুল ইসলামের স্ত্রী স্বপ্না বেগম। স্বপ্নার বাবার বাড়ি ভূযাপুর উপজেলার পাচ তেইল্লা গ্রামে। দেড় বছর আগের তার বিয়ে হয়।

রোববার সকালে সিজারিয়ান অপরাশেন করানোর জন্য ওই গৃহবধূ ঘাটাইল উপজেলা সদরের ডিজিটাল ক্লিনিক এন্ড নাসিং হোমে ভর্তি হয়।

বিকেল ৫টায় তার অপারেশন করানো হয়। এ সময় এক মাথা, দুই মুখ, চার চোখ বিশিষ্ট এক মেয়ে শিশুর জন্ম হয়। তবে জন্ম নেয়ার এক ঘণ্টা পর শিশুটি মারা যায়।

খবর পেয়ে মুহূর্তের মধ্যে শিশুটিকে দেখতে ভিড় জমে যায় ক্লিনিকটিতে। পরে গৃহবধূর পরিবার শিশুটিকে দাফন করানোর জন্য বাড়িতে নিয়ে যায়।