,

দিরাইয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত- ৪

বিশেষ প্রতিনিধিঃ
দিরাইয়ে প্রতিপক্ষের অতর্কিত হামলায় পৌরশহরের চন্ডিপুর গ্রামের বাসিন্দা দিরাই বাজারের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, প্রবীন আওয়ামীলীগ নেতা মেসার্স মজির উদ্দিন সেনেটারী এর মালিক আলহাজ মজির উদ্দিন,ভাতিজা মাওলানা ফরিদ উদ্দিন মিজানুর রহমান,ছেলে নজরুল ইসলাম ও মিজানুর রহমান আহত হয়েছেন।গুরুতর আহত ৪ জনকেই সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। কর্তব্যরত চিকিৎসক মঞ্জুর আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেন। গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় দিরাই পৌরশহরের লঞ্চঘাটের পুরান বাজারের মেসার্স মজির উদ্দিন সেনেটারী হাউসে এ ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান,বুধবার সন্ধ্যায় মজির উদ্দিন মিয়ার দিরাই লঞ্চ ঘাট সংলগ্ন পুরান বাজারের দোকানে বিকেলে বাকবিতন্ডার সূত্র ধরে মজির উদ্দিন এর ছেলে হারুন মিয়া সালা উদ্দিন কে লাঞ্চিত করে এর সূত্র ধরে
সালাহ উদ্দিন ও তার ভাইয়েরা অতর্কিত হামলা চালালে দোকানে থাকা আলহাজ মজির উদ্দিন,ছেলে নজরুল ইসলাম(৪০),ভাতিজা মাওলানা ফরিদ উদ্দিন(৪৮) ও মিজানুর রহমান গুরুতর আহত হন। এ সময় পাশের ব্যবসায়ীদের মাঝে আতংক দেখা দেয় এবং নিজেকে নিরাপদ করতে দ্রুত দোকান বন্ধ করে চলে যান,বর্তমানে বাজার ব্যবসায়ীদের মাঝে আতংক বিরাজ করছে। বাজারের একাধিক ব্যবসায়ী নাম প্রকাশ না করার স্বার্থে বলেন,মজির উদ্দিন মিয়া দিরাই বাজারের বড় ব্যবসায়ী,প্রয়াত জাতীয় নেতা সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের অতি আস্থা ভাজন প্রবীন আওয়ামীলীগ নেতা এবং এলাকার প্রভাবশালী পরিবারের সন্তান,মজির উদ্দিন মিয়ার দোকানে যদি এ ভাবে অতর্কিত হামলা হয় তাহলে আমরা যারা বিভিন্ন এলাকা থেকে এসে ব্যবসা করছি আমাদের নিরীহদের অবস্থা কেমন হবে। এভাবে প্রকাশ্যে হামলা এর আগে কোনো দিন দিরাই বাজারে হয়েছে বলে আমাদের জানা নেই। মজির উদ্দিন মিয়ার ভাতিজা ব্যবসায়ী মিজানুর রহমান জানান,মসজিদের জমি নিয়ে আমার চাচার সাথে সালাহ উদ্দিন এর দুই দিন আগে কথা কাটাকাটি হয় এরই জের ধরে আজ সন্ধ্যায় সালাউদ্দিন ও তার ভাই সহ তাদের সহযোগীরা আমার চাচার পুরান বাজারের লঞ্চ ঘাটের দোকানে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে অতর্কিত হামলা চালায়,এসময় দোকানে অবস্থানরত আমার চাচা আলহাজ মজির উদ্দিন,চাচাতো ভাই নজরুল ইসলাম মাওলানা ফরিদ উদ্দিন ও চাচাতো ভাই মিজানুর রহমান আহত হন। দিরাই থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তফা কামাল হামলার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,বাজারের পরিবেশ শান্ত রয়েছে,মামলা দায়ের প্রস্তুতি চলছে, আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *